এবার চীন সফরে গেলেন ইমরান খান, কাশ্মীর নিয়ে আলোচনা হবে? - OEBD | বিস্তারিত ভিতরে এবার চীন সফরে গেলেন ইমরান খান, কাশ্মীর নিয়ে আলোচনা হবে? - OEBD | বিস্তারিত ভিতরে

এবার চীন সফরে গেলেন ইমরান খান, কাশ্মীর নিয়ে আলোচনা হবে?

60

আঞ্চলিক ও দ্বিপক্ষীয় সমস্যা নিয়ে আলোচনা করতে তিন দিনের সফরে চীন গেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। আজ মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) বেইজিং পৌঁছালে তাকে দেশটির সংস্কৃতিমন্ত্রী লু শুগাং ও পাকিস্তানে নিযুক্ত চীনা রাষ্ট্রদূত ইয়াও জিং অভ্যর্থনা জানান। এক বছরের মধ্যে এটি পাকিস্তানি প্রধানমন্ত্রীর তৃতীয় চীন সফর।

পাকিস্তানের সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং এবং প্রধানমন্ত্রী লি খাখিয়াংয়ের সঙ্গে বৈঠক করবেন। এছাড়াও চীন সরকারের অন্য গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের সঙ্গে বৈঠক করবেন তিনি। ইমারান খান বিলিয়ন ডলারের চীন-পাকিস্তান অর্থনৈতিক করিডোর (সিপিসি) কাঠামোর আওতায় প্রকল্পগুলির সম্প্রসারণ নিয়েও আলোচনা করবেন।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান চীনের সঙ্গে অর্থনৈতিক বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে আলোচনা করবেন। বিশেষ করে কৃষি, শিল্প এবং আর্থ-সামাজিক বিভিন্ন বিষয় নিয়ে সফরে আলোচনা হবে। ধারণা করা হচ্ছে, কাশ্মীরের নিরাপত্তা পরিস্থিতি এবং অর্থনৈতিক সম্পর্ক নিয়েও আলোচনা করতে পারেন ইমরান।

ভারত সরকার গত ৫ অগাস্ট জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিল করে রাজ্যটিকে কেন্দ্রশাসিত দু’টি আলাদা অঞ্চলে ভাগ করার ঘোষণা দেয়। এরপর থেকেই ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে উত্তেজনা বেড়ে যায়। এরপর কয়েকটি দেশ ভারতের পক্ষ নিলেও পাকিস্তানের পক্ষ নিয়ে কথা বলে চীন। ভারতের সঙ্গে সীমান্ত নিয়ে বিরোধে থাকা চীন কাশ্মীর নিয়ে দিল্লির পদক্ষেপ ‘মেনে নেওয়া যায় না’ মন্তব্য করে পাকিস্তানকেই সর্মথন দিয়েছে।

সূত্র: ট্রিবিউন।

ফেনী নদীর নাম ‘আবরার নদ’ করার দাবি রিজভীর

বুয়েটের খুন হওয়া শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে দেশের মাটি-পানি রক্ষার যুদ্ধের প্রথম শহীদ বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) দুপুরে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

রিজভী বলেন, ‘দেশের মাটি-পানি রক্ষার যুদ্ধের প্রথম শহীদ আবরার ফাহাদ। ফেনী নদীর নাম হোক আবরার নদ।’ এ সময় আবরার ফাহাদ হত্যার তীব্র নিন্দা জানিয়ে রিজভী বলেন, ‘দেশবিরোধী চুক্তির বিরুদ্ধে স্ট্যাটাস দেয়ার অপরাধে নারকীয় কায়দায় রাতভর নির্যাতন চালিয়ে ছাত্রলীগের ক্যাডাররা খুন করেছে বুয়েটের সোনার টুকরো মেধাবী ছাত্র আবরার ফাহাদকে। আবরার ফাহাদের মতো নিরীহ নিরপরাধ দেশপ্রেমী মেধাবী ছাত্রকে হত্যার মাধ্যমে ছাত্রলীগ প্রমাণ করেছে যে, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সাধারণ শিক্ষার্থীদের জান-মালের কোনো নিরাপত্তা নেই।’

তিনি আরো বলেন, ‘বুয়েটের মতো একটি মেধাবীদের প্রতিষ্ঠান, আমি বলবো- সেন্টার অব এক্সিলেন্স; এইরকম একটি প্রতিষ্ঠানের ছাত্র, তার তো মত প্রকাশের স্বাধীনতা থাকতেই পারে। সে দেশ নিয়ে, দেশের যেকোনো ঘটনা নিয়ে মত প্রকাশ করতেই পারে। তারপরেও সে কোনো মিছিল করে নয়, কোনো মিটিংয়ে বক্তব্য রেখে নয়, প্রযুক্তির কল্যাণে সামাজিক মাধ্যমে সে তার অভিমত ব্যক্ত করেছে। আমি নিজেও পড়েছি। দ্বিতীয় বর্ষের একজন ছাত্রের রাজনৈতিক ইতিহাসের বিষয়ে তার যে লেখাপড়া সেটা আমাকে বিস্মিত করেছে। সেখান থেকে সে কিছু কথা লিখেছে। সেজন্য তাকে জীবন দিতে হলো। কারণ, এখন যে ছাত্রলীগ তাতে কোনো আদর্শ, মনন, শিক্ষা দ্বারা তৈরি নয়। একেবারেই একটি পেটুয়া বাহিনী।’

যে ১৯ জনের নামে মামলা দেয়া হয়েছে তার মধ্যে এ হত্যাকাণ্ডের মূল হোতারা নেই এবং তাদের রক্ষায় বুয়েট প্রশাসন চেষ্টা চালাচ্ছে বলেও দাবি করেন রিজভী। রিজভী প্রশ্ন তোলেন, ছাত্রলীগ কী? তারা ছাত্র সংগঠন। শিক্ষার বিষয় নিয়ে তারা কথা বলবে বা আন্দোলনও করতে পারে। শিক্ষা সংক্রান্ত, বিশ্ববিদ্যালয় সংক্রান্ত, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে তারা কথা বলবে। তা না করে একে মারে, তাকে ধরে, ছিনতাই করে।, কুপিয়ে হত্যা করে। রিজভী বলেন, বাস পোড়ানোর অভিযোগে যদি বিএনপির সিনিয়র নেতাদের বিরুদ্ধে মামলা হয় তাহলে আবরার হত্যার জন্য ক্ষমতাসীনদের শীর্ষ নেতাদের নামে মামলা হবে কিনা তা জাতি জানাতে চায়।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *